সর্বশেষ সংবাদ
নারায়ণগঞ্জে ঘুষের টাকাসহ এলজিইডির প্রকৌশলী দুদকের হাতে আটক আশুগঞ্জে একসঙ্গে ৬টি সন্তানের জন্ম! সাভারে নিখোঁজের একদিন পর শিক্ষার্থীর বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার, আটক ৪ লিবিয়ায় ৪৫ গাদ্দাফি সমর্থককে গুলি করে হত্যার আদেশ ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী আর নেই দেশে আবারো ২০০৭ সালের মতো জরুরি অবস্থা তৈরির ষড়যন্ত্র চলছে জাতির পিতার হত্যার সঙ্গে শুধু জিয়াউর রহমান নয় তার সঙ্গে খালেদা জিয়াও জড়িত কুমিল্লার ৮টি আসনে আ. লীগের প্রার্থী চূড়ান্ত দড়ি দিয়ে ফুল সজ্জিত গাড়ি টেনে এসপি আবিদকে বর্ণাঢ্য বিদায় দিলেন সহকর্মীরা বালি খুঁড়লেই মিলছে টাটকা রুই মাছ! ওজন ৫০০ গ্রাম!
হোম / ক্রাইম সংবাদ / বাসায় চিকিৎসার নামে ধর্ষণচেষ্টা ও শ্লীলতাহানির অভিযোগ
প্রতিকি ফটো
প্রতিকি ফটো

বাসায় চিকিৎসার নামে ধর্ষণচেষ্টা ও শ্লীলতাহানির অভিযোগ

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি:

মাথাব্যথার রোগীকে চেম্বারে না দেখে সরকারি কোয়ার্টারের বাসায় নিয়ে চিকিৎসার নামে এক বিধবাকে ধর্ষণচেষ্টা ও শ্লীলতাহানির অভিযোগ ওঠেছে কটিয়াদী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. তপন কুমার দত্তের বিরুদ্ধে।

ওই বিধবা নারীর দায়ের করা মামলায় আদালত সাত কর্মদিবসের মধ্যে তদন্ত করে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

মঙ্গলবার মামলার বাদী ওই নারী জানান,এখন পর্যন্ত পিবিআই থেকে কেউ তার সঙ্গে যোগাযোগ করেননি কিংবা মামলার ব্যাপারে খোঁজখবর নেননি।

এর আগে ৩১ জানুয়ারি তিনি ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে আদালতে মামলা দায়ের করেন।

মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণ সূত্রে জানা গেছে,কটিয়াদী উপজেলার আচমিতা ইউনিয়নের গাঙকুলপাড়া গ্রামের বিধবা (২৭) নারী মাথাব্যথাজনিত সমস্যার চিকিৎসার জন্য ২৯ জানুয়ারি কটিয়াদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে ৫ টাকা দিয়ে টিকিট কিনে রেজিস্ট্রেশন বহির্বিভাগে চিকিৎসা নিতে ডা. তপন কুমার দত্তের চেম্বারে যান।

এ সময় ডা. তপন কুমার দত্ত তার মাথাব্যথা ও রোগের কথা শোনে তাকে বলে যে,‘এটা বড় সমস্যা’। আপনি আমার সরকারি কোয়ার্টারের বাসার চেম্বারে কতক্ষণ পরে এলে ভালোভাবে চিকিৎসা দেব। কথানুযায়ী বাসার চেম্বারে গেলে ডাক্তার তপন তাকে বসিয়ে রেখে সব রোগীকে দেখে বিদায় দেন। পরে তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করে। পরে তার চিৎকারে অন্য রোগীরা এসে তাকে রক্ষা করে। এ ঘটনায় থানায় মামলা করতে না পেরে ওই বিধবা নারী আদালতে মামলা করেন।

কটিয়াদী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. তপন কুমার দত্ত দাবি করেন,এমন কোনো মহিলাকে তিনি চেনেন না এবং ওই মহিলা তার কাছে চিকিৎসা নিতেও আসেননি। একটি মহল বিভিন্নভাবে সুবিধাবঞ্চিত হয়ে প্রতিশোধ নিতে ওই নারীকে দিয়ে তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা রুজু করিয়ে হয়রানির চেষ্টা করা হচ্ছে।

অপর দিকে মামলার তদন্তের অগ্রগতির বিষয়ে খোঁজ নিতে পিবিআই কিশোরগঞ্জ ক্যাম্পের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. ইকবাল শফির সঙ্গে কথা বলতে মোবাইল ফোনে কয়েকবার চেষ্টা করেও ফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়।

আরও দেখুন

download

কুমিল্লার ৮টি আসনে আ. লীগের প্রার্থী চূড়ান্ত

একে পলাশ, কুমিল্লা প্রতিনিধি: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মাত্র কয়েক মাস বাকি। এরইমধ্যে ক্ষমতাসীন আওয়ামী ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Facebook