সর্বশেষ সংবাদ
নারায়ণগঞ্জে ঘুষের টাকাসহ এলজিইডির প্রকৌশলী দুদকের হাতে আটক আশুগঞ্জে একসঙ্গে ৬টি সন্তানের জন্ম! সাভারে নিখোঁজের একদিন পর শিক্ষার্থীর বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার, আটক ৪ লিবিয়ায় ৪৫ গাদ্দাফি সমর্থককে গুলি করে হত্যার আদেশ ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী আর নেই দেশে আবারো ২০০৭ সালের মতো জরুরি অবস্থা তৈরির ষড়যন্ত্র চলছে জাতির পিতার হত্যার সঙ্গে শুধু জিয়াউর রহমান নয় তার সঙ্গে খালেদা জিয়াও জড়িত কুমিল্লার ৮টি আসনে আ. লীগের প্রার্থী চূড়ান্ত দড়ি দিয়ে ফুল সজ্জিত গাড়ি টেনে এসপি আবিদকে বর্ণাঢ্য বিদায় দিলেন সহকর্মীরা বালি খুঁড়লেই মিলছে টাটকা রুই মাছ! ওজন ৫০০ গ্রাম!
হোম / ক্রাইম সংবাদ / বিয়ের প্রলোভনে বাড়ি ছাড়া নারী গণধর্ষণ!
Rape

বিয়ের প্রলোভনে বাড়ি ছাড়া নারী গণধর্ষণ!

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি:

প্রেমিকের বিয়ের প্রলোভনে বাড়ি ছাড়া এক নারী গণধর্ষণের শিকার হয়েছেন। গ্রাম্য সালিশে বিচার না পেয়ে ১৫দিন পর গতকাল বগুড়ার দুপচাঁচিয়া থানায় ধর্ষণের মামলা করেছেন ওই নারী। পুলিশ ধর্ষণের এ ঘটনায় দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

গ্রেপ্তার হওয়া দুই তরুণ তালোড়া ইউনিয়নের গাড়িবেলঘরিয়া গ্রামের আজিজার রহমানের ছেলে জাহেদুল ইসলাম ওরফে সাজু (২৮) ও গোবিন্দপুর ইউনিয়নের খিহালী পশ্চিমপাড়ার আবদুর রহিমের ছেলে নাজিম (২০)। ধর্ষণের শিকার ওই নারী উপজেলার তালোড়া রসুলপুর গ্রামের বাসিন্দা। ধর্ষিতা ওই নারী উপজেলা সদরের স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নার্সের কাজ করেন।

মামলার অভিযোগে জানা যায়, উপজেলার রসুলপুর গ্রামের রমজান আলীর মেয়ের সঙ্গে একই উপজেলার পার্শ্ববর্তী গ্রাম গাড়িবেলঘরিয়া গ্রামের নূর ইসলামের ছেলে সোহান(২০) এর সঙ্গে প্রেম ভালোবাসা ছিল। সোহান তাকে বিয়ে করার জন্য গত ২৭ জুলাই বিকেলে উপজেলার আলতাফনগর বাজার থেকে ডেকে নেয়। তাকে বিয়ে করার জন্য কাজীর অফিসে নিয়ে যাবে এমন কথা বলে সে সন্ধ্যা পর্যন্ত বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়ায়। রাতে তালোড়ার দোগাছি গ্রামের মানিকগঞ্জ মাঠের নাখরাজ নামক নির্জন স্থানে নিয়ে গিয়ে সোহান ও তার তিন সহযোগী মিলে তাকে গণধর্ষণ করে।

ওই নারীর বাবা বিচার চেয়ে স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সঙ্গে যোগাযোগ করে ব্যর্থ হন। পরে গতকাল সকালে থানায় এসে ওই নারী বাদী হয়ে অভিযোগ করেন। পুলিশ অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে মামলার দুইজন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে।

দুপচাঁচিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুর রাজ্জাক বলেন, ধর্ষণের পরও সোহান তাকে বিয়ে করবে বলে অভিযোগ দিতে দেয়নি। পরে সোহান মুঠোফোন বন্ধ করে গা ঢাকা দেওয়ায় ওই নারী বাদী হয়ে চারজনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। গ্রেপ্তার হওয়া জাহেদুল ও নাজিম প্রাথমিকভাবে পুলিশের কাছে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে। আসামিদের ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি নেয়ার জন্য আদালতে নেওয়া হবে। এবং ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ওই নারীকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হবে।

আরও দেখুন

download

কুমিল্লার ৮টি আসনে আ. লীগের প্রার্থী চূড়ান্ত

একে পলাশ, কুমিল্লা প্রতিনিধি: একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মাত্র কয়েক মাস বাকি। এরইমধ্যে ক্ষমতাসীন আওয়ামী ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Facebook