হোম / ক্রাইম সংবাদ / গভীর রাতে প্রেমিকার ঘরে অবৈধ কাজে লিপ্ত অবস্থায় হাতেনাতে আটক
index

গভীর রাতে প্রেমিকার ঘরে অবৈধ কাজে লিপ্ত অবস্থায় হাতেনাতে আটক

শরীয়তপুর প্রতিনিধি :

শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলায় প্রেমিকার বাড়িতে গিয়ে গ্রামবাসীর হাতে ধরা পড়েছেন কলেজছাত্র প্রেমিক। এ ঘটনায় রোববার (১০ মার্চ) তাদে বিয়ের প্রস্তুতি চলছে। এর আগে শনিবার রাতে দিকে এলাকাবাসী তাদের আপত্তিকর অবস্থায় হাতেনাতে আটক করেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, এক বছর যাবত উপজেলার ভূমখাড়া ইউনিয়নের উত্তর ভূমখাড়া গ্রামের মৃত মোবারক ছৈয়ালের মেয়ে কেয়া (ছদ্মনাম) (১৯) এবং নড়িয়া পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ডের মধ্য লোনসিং গ্রামের দেলোয়ার আকনের ছেলে রাব্বি আকনের (২৪) মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছে।

৯ মার্চ শনিবার কেয়ার মা হালিমা বেগম তার বাবার বাড়িতে বেড়াতে যান। ফলে বাড়ি ফাঁকা হয়ে গেলে এ সুযোগে রাতে কেয়াদের বাড়িতে ঢোকে রাব্বি। রাত ১২টার দিকে রাব্বি কেয়ার ঘরে প্রবেশ করে অবৈধ সম্পর্কে লিপ্ত হলে বিষয়টি এলাকাবাসী টের পেয়ে তাদের হাতেনাতে ধরে ফেলে। পরে গ্রাম্য মাতব্বর ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধির উপস্থিতিতে তাদের বিয়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়। আজকেই তাদের বিয়ে দেয়া হবে বলে এলাকাবাসী জানিয়েছে।

কেয়া নড়িয়া সরকারি কলেজের একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী ও রাব্বি একই কলেজের অনার্স প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী।

ঘটনার কথা স্বীকার করে রাব্বি আকন বলেন, এক বছর ধরে কেয়ার সঙ্গে আমার প্রেমের সম্পর্ক। শনিবার রাতে কেয়ার সঙ্গে দেখা করতে তাদের বাড়িতে আসি। আমি কেয়াকে বিয়ে করবো।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আবুল বাশার বলেন, অবৈধ কাজে লিপ্ত থাকার সময় রাব্বি ও কেয়াকে এলাকাবাসী হাতেনাতে আটক করেছে। দুজনেরই বিয়ের বয়স হয়েছে। বিয়েতে তাদের সম্মতিও আছে।

আরও দেখুন

raped

গফরগাঁওয়ে ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর বিষপান

গফরগাঁও প্রতিনিধি: গফরগাঁও উপজেলার কালাইপাড়-জালেশ্বর উচ্চ বিদ্যালয়ের এক ছাত্রী (১৪) বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা করেছে। ঘটনাটি ...

Leave a Reply

%d bloggers like this: